উয়েফা ইউরো: ইতিহাসের সবচেয়ে প্রাচীনতম দ্বৈরথে ওয়েম্বলিতে ড্র করলো ইংল্যান্ড-স্কটল্যান্ড

প্রকাশ: শনিবার, ১৯ জুন, ২০২১ | ০৯:৪৩:৪৫

ডেস্ক রিপোর্ট

সালটা ১৮৭২। ফুটবল মাঠে প্রথমবারের মত মুখোমুখি হয় প্রতিবেশী দুই চিরশত্রু স্কটল্যান্ড ও ইংল্যান্ড। এই ম্যাচটিই ফুটবল ইতিহাসের সবচেয়ে প্রাচীনতম দ্বৈরথ বলে স্বীকৃত। দ্বিপাক্ষিক সম্পর্কের চড়াই-উতরাই এবং দুদেশের সামাজিক ও রাজনৈতিক পটভূমিতে বর্তমানে ইংল্যান্ড-স্কটল্যান্ড ম্যাচ মানেই মাঠে এবং মাঠের বাইরে বাড়তি উত্তেজনা। 

আন্তর্জাতিক প্রীতি ম্যাচ ছাড়িয়ে বড় টুর্নামেন্টে দুদলের শেষ সাক্ষাতে জয় পেয়েছিল ইংল্যান্ড। ১৯৯৪ সালের উয়েফা ইউরোয় সেবার ২-০ গোলে জিতেছিলো থ্রি লায়ন্সরা।

ছবিঃ ইন্টারনেট

প্রায় পঁচিশ বছর পর আবারও ইউরোয় সাক্ষাৎ হলো চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী দুই দেশের। তবে এবার আর জয় নিয়ে মাঠ ছাড়তে পারেনি ইংল্যান্ড। ঘরের মাঠে স্কটিশদের কাছে পয়েন্ট হারিয়ে বসেছে গ্যারেথ সাউথগেটের দল।

শনিবার রাতে উয়েফা ইউরো চ্যাম্পিয়নশীপে লন্ডনের ওয়েম্বলি স্টেডিয়ামে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে গোলশূন্য ড্র করে ইংল্যান্ড। ক্লাব ফুটবলে দুর্দান্ত সব ইংলিশ ফুটবলার নিজ দেশের জার্সি গায়ে বিবর্ণ। তাই শক্তির বিচারে বেশ এগিয়ে থেকেও স্কটিশদের ‘বোরিং’ ফুটবল খেলে স্বাগতিকরা।

ছবিঃ টুইটার

ইউরোপের অন্যতম সেরা আক্রমণভাগ নিয়েও পুরো ম্যাচে গোলের উদ্দেশে ৯টি শট নেওয়া হ্যারি কেইনরা লক্ষ্যে রাখতে পারে কেবল একটি। আর স্কটল্যান্ডের ১১ শটের মধ্যে দুটি লক্ষ্যে ছিল।

দুই দলের অতি রক্ষণাত্মক ভঙ্গির খেলা গোলশূন্য ড্রতে শেষ হয় বহুল প্রতীক্ষিত ম্যাচটি। ইতিহাসে মাত্র চতুর্থবার মুখটা লড়াইয়ে দুদল গোলশূন্য ড্র করেছে। ফুটবল বিশ্বকাপ ও ইউরো চ্যাম্পিয়নশীপ মিলিয়ে এই নিয়ে ১৭ ম্যাচ গোলশূন্য ড্র করেছে ইংল্যান্ড। বড় টুর্নামেন্টে হ্যারি কেইনদের চেয়ে গোলশূন্য ড্র আর কেউ বেশি করতে পারেনি।

ছবিঃ টুইটার

গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে পয়েন্ট হারালেও ইংলিশদের স্বস্তি কেবল গোল হজম না করা। এই নিয়ে নিজেদের শেষ ১৮ ম্যাচে ১৪টিতেই কোন গোল হজম করেনি ইংলিশরা। বাইশ বছর পর মহাদেশীয় লড়াইয়ে ইংল্যান্ডের সঙ্গে ড্রয়ে আসরে টিকে থাকা কিছুটা হলেও স্বস্তি দিবে স্কটিশদেরও।

দুই ম্যাচে চার পয়েন্ট নিয়ে গ্রুপের দুইয়ে আছে গ্যারেথ সাউথগেটের ইংল্যান্ড। সমান ম্যাচে সমান পয়েন্টে গোল ব্যবধানে এগিয়ে আপতত শীর্ষে আছে চেক রিপাবলিক। ১ পয়েন্ট করে নিয়ে ক্রোয়েশিয়া তিনে ও স্কটল্যান্ড চারে আছে।

ছবিঃ টুইটার

আগামী মঙ্গলবার গ্রুপপর্বে নিজেদের সবশেষ ম্যাচে চেক রিপাবলিকের মুখোমুখি হবে ইংল্যান্ড। একই দিন আসরে নিজেদের শেষ ম্যাচে স্কটল্যান্ডের প্রতিপক্ষ ক্রোয়েশিয়া।