কোপা আমেরিকা: মেসি জাদুতেও ড্রয়ের বৃত্ত ভাঙতে পারেনি আর্জেন্টিনা

প্রকাশ: মঙ্গলবার, ১৫ জুন, ২০২১ | ০৫:২৫:০৯

ডেস্ক রিপোর্ট

কোপা আমেরিকা: মেসি জাদুতেও ড্রয়ের বৃত্ত ভাঙতে পারেনি আর্জেন্টিনা ছবিঃ ফেসবুক

বিশ্বকাপ বাছাইপর্বের পাঁচ ম্যাচে তিন ড্র। কোপা আমেরিকা খেলতে ব্রাজিলে আসার আগের দুই ম্যাচে টানা ড্র। শুরুতে এগিয়ে গিয়েও ড্র করা, আর্জেন্টিনার পিছপা ছাড়েনি মহাদেশীয় লড়াইয়ের মূলপর্বেও।

লাতিন আমেরিকা শ্রেষ্ঠত্বের লড়াইয়ে নিজেদের প্রথম ম্যাচে ফের ড্র করেছে আলবিসেলেস্তেরা। শুরুতে লিও মেসির রেকর্ড গড়া অনিন্দ্য সুন্দর ফ্রিকিক গোলে এগিয়ে যাওয়ার পরও শেষ পর্যন্ত ড্র করে মাঠ ছাড়তে হয় আকাশী-নীলদের। দ্বিতীয়ার্ধে স্পটকিকে আর্তো ভিদালের দুর্বল শট আর্জেন্টিনার গোলরক্ষক এমি মার্টিনেজ ঠেকিয়ে দিলেও ফিরতি বলে গোল করে চিলিকে মূল্যবান একটি পয়েন্ট এনে দেন এদুয়ার্ডো ভার্গাস।

ছবিঃ টুইটার

রিও ডি জেনেরায় প্রথমার্ধের পুরোটা সময় আধিপত্য বজায় রাখে আর্জেন্টিনা। নিজেদের রক্ষণ ঠিক রেখে চিলির উপর একতরফা আক্রমণ চালিয়েও মেসিরা আক্রমণভাগের ফুটবলারদের ব্যর্থতায় গোলের দেখা পাচ্ছিলো না।  ১২তম মিনিটে এগিয়ে যাওয়ার সুযোগ পেয়েও হাতছাড়া করে আকাশী-নীলরা। জিওভানি লো সেলসোর দারুণ ক্রসে ঠিকঠাক শট নিতে ব্যর্থ হন ইন্টার মিলান তারকা লাউতারো মার্টিনেজ।

একের পর এক আক্রমণ শানিয়ে  অবশেষে ৩৩তম মিনিটে গোলের দেখা পায়। মেসির দুর্দান্ত ফ্রিকিক বল চিলির ডিফেন্সের ওপর দিয়ে সামান্য বাঁক খেয়ে ঠিকানা খুঁজে নেয়। ঝাঁপিয়ে বলে হাত লাগালেও রুখতে পারেননি গোলরক্ষক ক্লাদিও ব্রাভো।

ছবিঃ ফেসবুক

প্রায় দুই বছর ১৪ ম্যাচ পর আর্জেন্টিনার জার্সিতে পেনাল্টি ছাড়া গোল করলেন মেসি। ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোকে (৫৬) পেছনে ফেলে বর্তমানে সক্রিয় ফুটবলারদের বেশি ফ্রিকিক গোলের মালিক এখন ছয়বারের বর্ষসেরা ফুটবলার।

মেসি ফ্রিকিকে প্রথম গোল পায় ২০০৯ সালে। ২০১১ সালে যখন রোনালদোর ফ্রিকিক গোলের সংখ্যা ছিল ৩০, তখন মেসির ছিল মাত্র ৪ গোল! সেখান থেকে দুর্দান্ত প্রত্যাবর্তনে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী রোনালদোকে ছাড়িয়ে গেলেন আর্জেন্টাইন অধিনায়ক।

চিলির বিপক্ষে এই গোল করেই আর্জেন্টিনার হয়ে প্রতিযোগিতামূলক ম্যাচে বাতিস্তুতাকে (৩৮) পেছনে ফেলে এখন সর্বোচ্চ গোলের মালিক মেসি (৩৯)। সবমিলিয়ে জাতীয় দলের হয়ে ১৪৫ ম্যাচে ৭৩ গোল হলো আর্জেন্টিনার রেকর্ড গোলদাতার।

ছবিঃ ইন্টারনেট

গোল খেয়ে হুশ ফিরে আর্জেন্টিনাকে কোপা আমেরিকায় দুবার কাঁদানো চিলির। সুযোগ বুঝে এবার নিজেরাও আক্রমণ শানায় আলবিসেলেস্তেদের রক্ষণে। তবে এদিন ইঞ্জুরির কারণে দলের আক্রমণভাগের অন্যতম সেরা ফুটবলার অ্যালেক্সিস সানচেজের অভাব হাড়েহাড়ে টের পায় দলটি। প্রথমার্ধে ১-০ গোলে এগিয়ে থেকে বিরতিতে আর্জেন্টিনা।

বিরতি থেকে ফিরে ম্যাচে ফিরে চিলি। ম্যাচের ৫৭তম মিনিটে আর্তু ভিদালকে নিজেদের ডি-বক্সে নিকোলাস ট্যাগলিফিয়েকো ফাউল করলে ভিএআরের সাহায্যে পেনাল্টির বাঁশি বাজান রেফারি। কিন্তু স্পটকিকে ইন্টার মিলান তারকার দুর্বল শট ঠেকিয়ে দেন আর্জেন্টিনার গোলরক্ষক এমি মার্টিনেজ। যদিও বল ক্রসবারে লেগে ফেরার পর হেডে জালে পাঠান ভার্গাস। তারপর অনেক চেষ্টা করেও আর ব্যবধান বাড়াতে পারেনি কেউ৷ ফলে আরও একবার শুরুতে এগিয়েও গিয়েও পয়েন্ট ভাগাভাগি করে সন্তুষ্ট থাকতে মেসিদের।

ছবিঃ টুইটার

এই নিয়ে নিজেদের সবশেষ তিন ম্যাচেই ড্র করলো আর্জেন্টিনা। শিরোপা পুনরুদ্ধারের অভিযানে আগামী শনিবার নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে প্রতিযোগিতার সফলতম দল উরুগুয়ের মুখোমুখি হবে লিওনেল স্কোলানির দল। একই দিন চিলির প্রতিপক্ষ বলিভিয়া।