ক্রিকেট > আন্তর্জাতিক ক্রিকেট

অ্যাশেজের চেয়েও জনপ্রিয় ছিলো ভারত-পাকিস্তান সিরিজ: ইনজামাম

নিউজ ডেস্ক

১০ জুন ২০২১, দুপুর ৪:৭ সময়

[ inshot_20210610_215745752 ]
ছবিঃ সংগৃহীত
ক্রিকেট ইতিহাসে সবচেয়ে পুরোনো এবং মর্যাদার দ্বৈরথ হিসেবে পরিচিত ইংল্যান্ড-অস্ট্রেলিয়ার মধ্যকার অ্যাশেজ সিরিজ। মাঠে এবং মাঠের বাইরে ঐতিহ্যবাহী এই লড়াইয়ের রোমাঞ্চে সারাবিশ্বের ক্রিকেট ভক্তদের সর্বদাই আকৃষ্ট হতে দেখা যায়। কিন্তু পাকিস্তানের সাবেক অধিনায়ক ইনজামাম-উল-হকের মতে জনপ্রিয়তা এবং উন্মাদনার বিচারে অ্যাশেজ নয় বরং ভারত-পাকিস্তান সিরিজই ছিলো সবচেয়ে এগিয়ে।
ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যকার রাজনৈতিক ও কূটনৈতিক বৈরিতার প্রভাব বেশ ভালোভাবেই পড়েছে তাদের ক্রিকেটের উপরেও। ২০১৩ সালের পর এই দুই দেশ আর কখনই কোনও দ্বিপাক্ষিক সিরিজ খেলেনি। টেস্টে সর্বশেষ দেখা আরও আগে, ২০০৭ সালে। এখন শুধু এশিয়া কাপ আর আইসিসির টুর্নামেন্টেই কালেভদ্রে মুখোমুখি হয় চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী দুই দেশ। যা বেশ ব্যথিত করছে পাকিস্তানের সাবেক তারকা ব্যাটার ইনজামাম-উল-হককে। সাবেক পাকিস্তান অধিনায়কের মতো ঐতিহ্যবাহী অ্যাশেজের চেয়েও মানুষের বেশি উন্মাদনা রয়েছে ভারত-পাকিস্তান সিরিজ নিয়ে। তাই তিনি মনে করেন দ্রুতই দুই দেশের দ্বিপাক্ষিক সিরিজ পুনরায় আয়োজন করা জরুরি। স্পোর্টস্টারকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন,

“অ্যাশেজের চেয়েও অনেক বেশি মানুষ ভারত-পাকিস্তান সিরিজ দেখতো। এই ম্যাচের প্রতিটা মুহূর্ত উপভোগ করতো। ক্রিকেট এবং খেলোয়াড়দের ভালোর জন্য আবারও এশিয়া কাপ এবং ভারত-পাকিস্তানের মধ্যে দ্বিপাক্ষিক সিরিজ শুরু হওয়া প্রয়োজন।”

[caption id="attachment_10509" align="aligncenter" width="602"] পাকিস্তানি কিংবদন্তি ইনজামাম উল হক। ছবিঃ সংগৃহীত[/caption] চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী দুই দেশের খেলা নিয়ে নিজের অভিজ্ঞতার আলোকে ইনজামাম বলেন, "আমাদের সময় এশিয়া কাপের আলাদা গুরুত্ব বহন করতো। যেখানে শীর্ষ দলগুলোর সব সেরা ক্রিকেটাররা অংশ নিতো। সর্বোচ্চ পর্যায়ের ক্রিকেটে যত খেলা হবে, তত দক্ষতা বৃদ্ধি পাবে।" তিনি আরও সংযোজন করেন, "ভারত যদি পাকিস্তানের মুখোমুখি হয়, তবে দুই দেশের ক্রিকেটারই নিজেদের একদম উজাড় করে দেবে। কারণ তারা প্রত্যেকেই জানে, এই সিরিজের গুরুত্ব এবং জনপ্রিয়তা কতটা বেশি। তাই আমি মনে করি এই সিরিজ শুরু হওয়াটা খুব বেশি দরকার।’’