পাকিস্তানের বিপক্ষে সহজ জয়ে সিরিজে ফিরলো ইংল্যান্ড

প্রকাশ: সোমবার, ১৯ জুলাই, ২০২১ | ০৬:৫৪:৪৪

ডেস্ক রিপোর্ট

পাকিস্তানের বিপক্ষে সহজ জয়ে সিরিজে ফিরলো ইংল্যান্ড ছবি - আইসিসি

৩ ম্যাচ সিরিজের প্রথম টি-টোয়েন্টিতে রান উৎসবের ম্যাচে স্বাগতিক ইংল্যান্ডকে ৩১ রানে হারিয়ে ওয়ানডে সিরিজের দুঃস্বপ্ন কাটিয়ে দুর্দান্ত এক জয়ই তুলে নিয়েছিলো পাকিস্তান। তবে দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টিতেই জয়ে ফিরেছে ইংলিশরা, ৪৫ রানের সহজ জয়ের পাশাপাশি সিরিজেও ফিরেছে মঈন আলী, জস বাটলারা।

ইংলিশদের দেওয়া ২০১ রানের লক্ষ্যে ব্যাটিংয়ে নেমে শুরুটা আশাজাগানিয়াই ছিল পাকিস্তানের, প্রথম টি-টোয়েন্টিতে ম্যাচের ভাগ্য গড়ে দেওয়া জুটি গড়া বাবর আজম ও মোহাম্মদ রিজওয়ান এদিনও পাকিস্তানকে দারুণ শুরু এনে দেন। গড়েন ৫০ রানের উদ্বোধনী জুটি, ২২ রান করে ফিরেন বাবর; রিজওয়ানের ব্যাট থেকে আসে ৩৭ রানের ইনিংস।

পাকিস্তানের মিডল অর্ডার গুড়িয়ে দেন ইংলিশ স্পিনাররা, ১০০ পেরোনোর আগেই ৫ উইকেট হারিয়ে ম্যাচ থেকে অনেকটাই ছিটকে যায় পাকিস্তান। ইমাদ ওয়াসিমের ১৩ বলে ২০ ও সাদাব খানের ২২ বলে ৩৬ রানের ইনিংস শুধু পরাজয়ের ব্যবধানই কমিয়েছে মাত্র, ইংল্যান্ডের হয়ে সাকিব মাহমুদ ৩, মঈন আলী ও আদিল রশিদ নেন ২টি করে উইকেট।

লিডসে ম্যাচের শুরুতে টসে জিতে বোলিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয় পাকিস্তান, অধিনায়কের সিদ্ধান্তকে সঠিক প্রমাণে প্রথম ওভারেই জেসন রয়কে ফেরান ইমাদ ওয়াসিম। পাকিস্তানি এই স্পিনারের শিকার হন ডেভিড মালানও, আউট হন ১ রান করেই; ১৮ রানে ২ উইকেট হারিয়ে চাপেই পড়ে ইংল্যান্ড ক্রিকেট দল।

তবে দ্বিতীয় উইকেটে পাল্টা আক্রমণকেই বিপদ কাটিয়ে ওঠার রাস্তা হিসেবে বেছে নেন জস বাটলার ও মঈন আলী, গড়েন ৩১ বলে ৬৭ রানের বিধ্বংসী জুটি। মাত্র ১৬ বলে ৬ চার ও ১ ছক্কায় ৩৬ রান করেন মঈন আলী, আগের ম্যাচের সেঞ্চুরিয়ান লিয়াম লিভিংস্টোনকে নিয়ে আরও ৫২ রান যোগ করেন বাটলার; তুলে নেন ফিফটিও।

৩৯ বলে ৫৯ রান করা বাটলারের বিদায়ের পর সেভাবে আর কেউই দাঁড়াতে পারেনি, ৩৮ রান করে রান আউটে কাটা পড়েন লিয়াম লিভিংস্টোন। তবে জনি বেয়ারস্টোর ১৩ ও ক্রিস জর্ডানের ১৪ রানের ইনিংসে ২০০ পূর্ণ করতে সক্ষম হয় ইংল্যান্ড, পাকিস্তানের হয়ে মোহাম্মদ হাসনাইন ৩, ইমাদ ওয়াসিম ও হারিস রউফ নেন ২ টি করে উইকেট।

সংক্ষিপ্ত স্কোরঃ

ইংল্যান্ড ২০০/১০, ১৯.৫ ওভার; (জস বাটলার ৫৯, লিয়াম লিভিংস্টোন ৩৮, মঈন আলী ৩৬, জনি বেয়ারস্টো ১৩, ক্রিস জর্ডান ১৪, মোহাম্মদ হাসনাইন ৩/৫১, ইমাদ ওয়াসিম ২/৩৭, হারিস রউফ ২/৪৮)।

পাকিস্তান ১৫৫/৯, ২০ ওভার; (বাবর আজম ২২, মোহাম্মদ রিজওয়ান ৩৭, শোয়েব মাকসুদ ১৬, ইমাদ ওয়াসিম ২০, সাদাব খান ৩৬, সাকিব মাহমুদ ৩/৩৩, মঈন আলী ২/৩২, আদিল রশিদ ২/৩০)।

ম্যাচ সেরাঃ মঈন আলী (ইংল্যান্ড)।