অন্যান্য > দাবা

অনুষ্ঠিত হলো শেখ কামাল আন্তর্জাতিক অনলাইন দাবা প্রতিযোগিতা

নিউজ ডেস্ক

৩০ আগস্ট ২০২১, দুপুর ৪:৫৬ সময়

[ 240976996_965238174332384_6291023657386160261_n ]
জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জেষ্ঠ্য পুত্র, মহান মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক, বাংলাদেশে আধুনিক ক্রীড়া ধারার প্রবর্তক ও সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব শহীদ ক্যাপ্টেন শেখ কামাল এর ৭২তম জন্ম-বার্ষিকী উপলক্ষে বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের আয়োজনে শহীদ ক্যাপ্টেন শেখ কামাল আমন্ত্রণমূলক আন্তর্জাতিক অনলাইন দাবা প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান আজ (সোমবার) রাতে হোটেল লা মেরিডিয়ানের স্কাই বল-রুমে অনুষ্ঠিত হয়। যুব ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মোঃ জাহিদ আহসান রাসেল এমপি প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বাংলাদেশের বিজয়ীদের মধ্যে পুরস্কার বিতরণ করেন এবং বিদেশী পুরস্কার প্রাপ্তদের ভার্চুয়ালি পুরস্কার দেন। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ পুলিশের মহা পরিদর্শক এবং বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সভাপতি ডঃ বেনজীর আহমেদ, বিপিএম (বার) ও বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সহ-সভাপতি তরফদার মোঃ রুহুল আমিন । প্রধান অতিথির বক্তব্যে যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী বলেন, "শেখ কামাল ছিলেন এ দেশের আধুনিক ক্রীড়াঙ্গনের রূপকার এবং আধুনিক ফুটবলের জনক। ক্রীড়াঙ্গনে শেখ কামালের অসামান্য অবদানকে স্মরনীয় করে রাখতে গত বছর থেকে আমরা জাতীয় ভাবে নানা আয়োজনের মধ্যে দিয়ে শেখ কামালের জন্মদিন উদযাপন করার উদ্যোগ গ্রহণ করেছি। এরই ধারাবাহিকতায় বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশন কর্তৃক আয়োজিত হয়েছে আন্তর্জাতিক দাবা প্রতিযোগিতা। আমি প্রতিযোগিতার বিজয়ী এবং অংশগ্রহনকারী সকলকে আমার আন্তরিক শুভেচছা ও অভিনন্দন জানাচ্ছি।" তিনি বলেন, "শেখ কামালের অকাল মৃত্যুতে দেশের ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক ক্ষেত্রে তো বটেই, রাজনীতিতেও অসামান্য ও অপূরনীয় ক্ষতি সাধিত হয়েছিল। ঘাতকের বুলেট শেখ কামালের শারিরীক মৃত্যু ঘটিয়েছে সত্য, কিন্তু তিনি মৃত্যুঞ্জয়ী হয়ে আছেন মুক্তিযুদ্ধে, ক্রীড়ায়, সংস্কৃতিতে। আজকের এই আয়োজনের মাধ্যমে আমি এই অসামান্য সংগঠক, বহুমূখী প্রতিভার অধিকারী বীর মুক্তিযোদ্ধার স্মৃতির প্রতি গভীর শ্রদ্ধা নিবেদন করছি।" এ প্রতিযোগিতায় চীনের গ্র্যান্ড মাস্টার লি ডি অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন ৯ খেলায় ৮ পয়েন্ট পেয়ে অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন শিরোপা জয় করেন। সাড়ে সাত পয়েন্ট নিয়ে ভারতের গ্র্যান্ড মাস্টার অভিমান্যু পৌরনিক রানার-আপ হয়েছেন। সাড়ে ছয় পয়েন্ট করে অর্জন করেন ৫ জন খেলোয়াড়, টাইব্রেকিং পদ্ধতিতে ভারতের গ্র্যান্ড মাস্টার কার্তিক ভেঙ্কাটারামান তৃতীয়, ইরানের গ্র্যান্ড মাস্টার আমিন তাবাতাবেই চতুর্থ, বেলেরুশের গ্র্যান্ড মাস্টার ভাদিশ্লাভ কোভলেভ পঞ্চম, ভারতের গ্র্যান্ড মাস্টার শ্যাম সুন্দর ষষ্ঠ ও ইরানের গ্র্যান্ড মাস্টার মাকসুদলো পারহাম সপ্তম হন। চ্যাম্পিয়ন গ্র্যান্ড মাস্টার লি ডি দুই হাজার মার্কিন ডলার, রানার-আপ গ্র্যান্ড মাস্টার অভিমান্যু পৌরনিক পনেরো শত ডলার, তৃতীয় গ্র্যান্ড মাস্টার কার্তিক ভেঙ্কাটারামান এক হাজার মার্কিন ডলার পুরস্কার পান। তিন দিন ব্যাপী ৯ রাউন্ড সুইস-লিগ পদ্ধতিতে অনুষ্ঠিত এ ইভেন্টে ১৫ টি দেশের ২১ জন গ্র্যান্ড মাস্টার ও ১৩ জন আন্তর্জাতিক মাস্টারসহ মোট ৮০ জন খেলোয়াড় অংশগ্রহণ করেন। প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের মোট নগদ দশ হাজার মার্কিন ডলার অর্থ পুরস্কার দেয়া হয়।