ফুটবল > বাংলাদেশ ফুটবল

গোলের দেখা পেলেও ভাগ্য বদলায়নি বাংলাদেশের

নিউজ ডেস্ক

৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, দুপুর ৪:৪০ সময়

[ whatsapp-image-2021-09-07-at-9-36-42-pm ]
আরও একবার হতাশা নিয়েই মাঠ ছাড়তে হল বাংলাদেশকে। প্রথমার্ধের দুই গোলের পর দ্বিতীয়ার্ধে আরও দুই গোল হজম করে জামাল ভুঁইয়ারা। যদিও দ্রুতই গোলের দেখা পেয়ে ব্যবধান কমায় বাংলাদেশ। তবে শেষ পর্যন্ত আর ম্যাচে ফেরা হয়নি জেমি ডে'র শিষ্যরা। টুর্নামেন্টের দুই ম্যাচেই হারের তিক্ত স্বাদ পেল লাল-সবুজের প্রতিনিধিরা। মঙ্গলবার কিরগিজস্তানের স্পার্তাক স্টেডিয়ামে তিন জাতি ফুটবল টুর্নামেন্টে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে স্বাগতিক কিরগিজস্তানের কাছে ৪-১ গোলে হেরেছে বাংলাদেশ। কিরগিজদের হয়ে গোল করেছেন আদার মোল্ডোঝুনুসভ, আলিমার্দন শুকুরভ, তুরসুনালি রুস্তামোভ এবং বখতিয়ার দুশদেভোক। বাংলাদেশের হয়ে একমাত্র গোলটি করেন মাহবুবুর রহমান সুফিল। এ নিয়ে সর্বশেষ তিন ম্যাচেই কিরগিজস্তানের কাছে হারল বাংলাদেশ। এর আগে বিশ্বকাপ বাছাইয়ে ২০১৫ সালে প্রথম লেগে ৩-১ গোলে হারের পর ফিরতি লেগে ২-০ ব্যবধানে হেরেছিল বাংলাদেশ। ফিলিস্তিনের কাছে ২-০ গোলে হারের পর কিরগিজস্তান ম্যাচে বেশ কিছু পরিবর্তন আসবে এমন আভাস দিয়েছিলেন প্রধান কোচ জেমি ডে। ঠিক সে পথেই হেটে চার পরিবর্তন নিয়ে কিরগিজস্তানের বিপক্ষে একাদশ সাজায় বাংলাদেশ। আগের ম্যাচে ঝলক দেখানো কানাডা প্রবাসী রাহবার খানকে এ ম্যাচে শুরুর একাদশেই রাখেন জেমি ডে, ফলে বেঞ্চ হতে হয় অভিজ্ঞ সোহেল রানাকে। আগের ম্যাচে গোল পোস্টের নিচে দায়িত্ব পালন করা শহিদুল সোহেলকে বসিয়ে ফর্মে থাকা আনিসুর রহমান জিকোকে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। পরিবর্তন হয়েছে রক্ষণ ভাগেও, রেজাউল করিমকে বসিয়ে সুযোগ দেয়া হয়েছে রিয়াদুল রাফিকে। এছড়া সাদ উদ্দিনের জায়গায় সুযোগ পেয়েছেন মাহবুবুর রহমান সুফিল। খেলোয়াড় পরিবর্তন করলেও মাঠে বাংলাদেশের পার্ফরমেন্স খুব একটা পরিবর্তন হয়নি বাংলাদেশের। আগের ম্যাচ থেকে এ ম্যাচে আক্রমণে কিছুটা সক্রিয় দেখা গিয়েছে বাংলাদেশকে, গোলের দেখা পাওয়ার পাশাপাশি কিরগিজদের রক্ষণ ভাগেও সুফিল,রাকিবদের আনাগোনাও বেশ চোখে মিলেছে। নিজেদের দর্শকদের সামনে উজ্জীবিত কিরগিজরা এগিয়ে যায় ১০ মিনিটেই। ডি-বক্সের বাইরে থেকে আলিমার্দন শুকুরভের নেওয়া ফ্রি-কিক তপু বর্মনের মাথার ওপর দিয়ে গিয়ে পড়ে আদার মোল্ডোঝুনুসভের পায়ে। ওঁত পেতে থাকা কিরগিজ ফরোয়ার্ড সুযোগটা কাজে লাগাতে একদমই ভুল করেননি। তার বাঁ পায়ের কোণাকুণি শটে বল বাংলাদেশ গোলরক্ষক জিকোকে ফাঁকি দিয়ে জড়িয়ে যায় জালে। আদার মোল্ডোঝুনুসভকে আটকাতে পারেনি ইয়াসিন আরাফাত ও রিয়াদুল রাফি। কিরগিজদের আক্রমণ সামলাতে হিমশিম খাওয়া বাংলাদেশ মাঝ মাঠে কোনরকম সুযোগ পাচ্ছিলো না। তরুণ রাহবার খানও জামালের সাথে খাবি খাচ্ছিলো। ফলে ২৪ মিনিটেই তুলে নেওয়া হয় গত ম্যাচে অভিষেক হওয়া কানাডা প্রবাসী রাহবার খান স্মরণকে। বদলি হিসেবে নামেন অভিজ্ঞ সোহেল রানা। ২৭ মিনিটে বাংলাদেশের সুযোগ এসেছিল সমতায় ফেরার। কিরগিজস্তানের ডি-বক্সে সুযোগের অপেক্ষায় থাকা রাকিব হোসেনকে ভালো জায়গায় ক্রস দিয়েছিলেন ইয়াসিন আরাফাত। তাঁর ক্রসে বল রাকিবের পায়ে পড়ার আগেই অবশ্য নিজেদের বিপদমুক্ত করেন স্বাগতিক ডিফেন্ডাররা। আক্রমণাত্মক হতে গিয়ে ৪০ মিনিটে দ্বিতীয় গোল হজম করে বাংলাদেশ। নিজেদের অর্ধ থেকে পাল্টা আক্রমণে বাংলাদেশের ডি-বক্সে ঢুকে পড়েন কিরগিজ ডিফেন্ডার খায়রাত ইজাকভ। তাঁর কাটব্যাকে অনেকটা ফাঁকাতেই বল পান আলিমার্দন শুকুরভ। বাঁ পায়ের শটে দলের এবং ব্যক্তিগত দ্বিতীয় গোল করেন কিরগিজ ফরোয়ার্ড। তৃতীয় গোলের দেখা পেতে বিরতি থেকে ফেরার মিনিট খানেকও সময় নেয়নি স্বাগতিকরা। বাম পাশ দিয়ে বক্সের মধ্যে ঢুকে পড়েন গুলজিগিত আলিকুলভ, বাংলাদেশের ডিফেন্ডাররা বাঁধা দেয়ার চেষ্টা করলে বাম পা থেকে ডান পায়ে নিয়ন্ত্রণে নেন বল। সেখান থেকে পোস্টের সামনে বল বাড়িয়ে দিলে পিছন থেকে এসে সহজেই লক্ষ্যভেদ করেন কিরগিজ অধিনায়ক তুরসুনালি রুস্তামোভ। তিন গোল হজমের পর কিছুটা আক্রমণাত্মক ভঙ্গিতে খেলতে থাকে বাংলাদেশ। এর ফলও পেয়ে যায় ফ্রুত, ৫৩ মিনিটে ব্যবধান কমান মাহবুবুর রহমান সুফিল। রহমত মিয়া লম্বা থ্রো বক্সের মধ্যে কিরগিজস্তানের ডিফেন্ডাররা হেডে ক্লিয়ার করার চেষ্টা করলেও বল চলে যায় ফাকায় থাকা সুফিলের কাছে, ডান পায়ে বল নিয়ন্ত্রণে নিয়ে শরীর সামান্য ঘুরিয়ে কাছের পোস্টে বল গড়িয়ে গড়িয়ে জালে জড়ায়। ডান দিকে ঝাঁপালেও কোন সুযোগ পায়নি কিরগিজ গোলরক্ষক এরজান তোকোতায়েভ। এ নিয়ে বাংলাদেশের জার্সিতে পঞ্চম গোলের দেখা পেলেন সুফিল, সর্বশেষ নেপালে ত্রিদেশীয় টুর্নামেন্টের ফাইনালে গোলের দেখা পেয়েছিলেন তিনি। ৭৪ মিনিটে কিরগিজস্তান ফুটবলারের ভুল পাস নিজের নিয়ন্ত্রণে নিয়ে বক্সের মধ্যে ঢুকে পড়েন বদলি হিসেবে নামা সুমন রেজা, বক্সের মধ্যে থাকা বিপলুর দিকে ঠেলে দিলেও ঠিক মত শটই নিতে পারেননি বিপলু। বাংলাদেশ গোলের সুযোগ কাজে লাগাতে না পারলেও কিরগিজস্তান বাংলাদেশের উপর আক্রমণের চাপ বাড়িয়েই যাচ্ছিলো। ৮৬ মিনিটে বখতিয়ার দুশদেভোকের বাকানো ফ্রিকিক দূর্দান্ত ভাবে লাফিয়ে বাইরে ঠেলে দেন আনিসুর রহমান জিকো। তবে মিনিট দুয়েক বাদে বাংলাদেশের রক্ষণ ভাগ আর আটকাতে পারেনি বখতিয়ারকে। আলিমার্দন শুকুরভের কর্ণার থেকে আসা বল খানিকটা পিছন থেকে এসে হেডে লক্ষ্যভেদ করেন বখতিয়ার। বাংলাদেশের ক্লাব শেখ রাসেল ক্রীড়া চক্রের হয়ে খেলেন কিরগিজস্তানের ফুটবলার বখতিইয়ার। এর আগে বসুন্ধরা কিংসের হয়েও খেলেছিলেন এই মিডফিল্ডার। বাকি সময়ে আর ব্যবধান কমাতে পারেনি বাংলাদেশ। ফলে টানা দুই হার নিয়ে মাঠ ছাড়ে জামাল ভুঁইয়ারা। সর্বশেষ পাঁচ ম্যাচের চারটিতেই হারের স্বাদ পেল বাংলাদেশ, বিশ্বকাপ বাছাইয়ের ম্যাচে আফগানিস্তানের সাথে ১-১ গোলে ড্র করেছিল জামাল ভুঁইয়ারা। আগামী ৯ সেপ্টেম্বর এই স্টেডিয়ামে কিরগিজস্তান অনূর্ধ্ব-২৩ দলের বিপক্ষে লড়বে বাংলাদেশ। এরপরের দিনই দেশে ফিরে আসবে।