ক্রিকেট > আন্তর্জাতিক ক্রিকেট

ইতিহাস গড়ার পিছনে আড়ালের ৩ নায়ককে কৃতিত্ব দিলেন রিজওয়ান

নিউজ ডেস্ক

১৬ নভেম্বর ২০২১, সকাল ৫:৩৭ সময়

চলতি বছরটা স্বপ্নের মতোই যাচ্ছে মোহাম্মদ রিজওয়ানের। ব্যাট হাতে বাইশ গজে মুগ্ধতা ছড়িয়ে বছর জুড়েই রানের ফোয়ারা ছুটিয়েছেন পাকিস্তানের এই উইকেটকিপার-ব্যাটার। যে ধারাবাহিকতা অব্যাহত ছিল সদ্য সমাপ্ত টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপেও। মরুর দেশে বসা কুড়ি ওভারের এবারের বিশ্বকাপ আসরে ছয়ে ম্যাচে তিন ফিফটি সহ ৭০.২৫ ব্যাটিং গড় আর ১২৭.৭২ স্ট্রাইকরেটে ২৮১ রান করেছেন রিজওয়ান। আগেই আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটের এক বর্ষপঞ্জিকায় সর্বোচ্চ রানের বিশ্বরেকর্ডটি নিজের করে নিয়েছিলেন পাকিস্তানি কিপার-ব্যাটার, বিশ্বকাপে এসে যা নিয়ে গেছেন আরও অনন্য এক উচ্চতায়। ক্রিকেট ইতিহাসের সর্বপ্রথম ক্রিকেটার হিসেবে আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটের এক বর্ষপঞ্জিকায় হাজার রানে মাইলফলক গড়েছেন মোহাম্মদ রিজওয়ান। ২০২১ সালে সর্বোচ্চ পর্যায় এখন পর্যন্ত খেলা ২০ ইনিংসে ১০ ফিফটি আর এক সেঞ্চুরিতে ১০৩৩ রান করেছেন পাকিস্তানি ওপেনার, যেখানে তার গড় ৮৬.০৮ আর স্ট্রাইক রেট ১৩৬.৪৫। অথচ ক্যারিয়ারের শুরুতে পথটা মোটেই এত সুখকর ছিল না রিজওয়ানের। তাহলে কীভাবে এলো এই আমূল-পরিবর্তন! কারা ছিলেন তার সাফল্যের আড়ালে? বাংলাদেশ সিরিজকে সামনে রেখে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে ভাগ্য বদলানো সেই মানুষগুলোকে কৃতিত্ব দিতে মোটেই কার্পণ্য করেননি রিজওয়ান। তিনি বলেন, ‘আমার রেকর্ড নিয়ে কথা বলতে গেলে, এ যাত্রা পথে আমি অবশ্যই কয়েকজনের অবদানের কথা বিশেষ ভাবে স্মরণ করব। প্রথমে বলবো রিচার্ড পাইবাসের (পাকিস্তানের সাবেক কোচ) কথা। যিনি আমাকে টি-টোয়েন্টির মনোভাব আনতে সাহায্য করেছেন।" রিজওয়ান আরও যোগ করেন, "ইনজি ভাইয়ের (ইনজামাম-উল হক) কথা বলব, তিনি অনেক ধারণা দিয়েছেন। তৃতীয় আরেকজনের কথা বলব যিনি পুরো বছর জুড়ে আমাকে বিভিন্নভাবে সাহায্য করেছেন, আমাদের পাকিস্তান দলের শাহিদ আসলাম ভাই (ম্যানেজার)।"