ফুটবল > বাংলাদেশ ফুটবল

ক্যাবরেরার সঙ্গে কাজ করতে মুখিয়ে আছেন জামাল ভুইয়া

নিউজ ডেস্ক

২৫ জানুয়ারী ২০২২, দুপুর ১:৫৫ সময়

[ img-20220125-wa0051 ]
সাইফ স্পোর্টিং এর অনুশীলন দেখতে গিয়েছিলেন হ্যাভিয়ের ক্যাবরেরা।
২০১৩ সালে বাংলাদেশের জার্সিতে অভিষেক হওয়ার পর বেশ কয়েকজন বিদেশি কোচের অধীনে খেলেছেন জামাল ভুইয়া। লুডভিক ডি ক্রুইফ, এন্ড্রু ওড, জেমি ডে'র মত কোচের পর জামালরা খেলবেন এখন স্প্যানিশ হ্যাভিয়ের ক্যাবরেরার অধীনে। বাংলাদেশের ২৩তম বিদেশি কোচ হিসেবে দায়িত্ব নেওয়া ক্যাবরেরার সঙ্গে কাজ করতে মুখিয়ে আছেন জাতীয় দলের অধিনায়ক জামাল ভুইয়া। মঙ্গলবার বিকেলে সাইফ স্পোর্টিং ক্লাবের অনুশীলন দেখতে গিয়েছিলেন জাতীয় দলের কোচ হ্যাভিয়ের ক্যাবরেরা। সেখানেই অধিনায়ক জামাল ভুইয়ার সঙ্গে সাক্ষাত হয়েছে ক্যাবরেরার। যদিও এর আগেই নতুন কোচের সঙ্গে দুই ঘন্টার লম্বা আলাপ সেরেছেন জাতীয় দলের অধিনায়ক। সে আলোচনার মূল বিষয় ছিল ক্যাবরেরা জামালদের কাছ থেকে কী চায়। এ বিষয়ে জামাল বলেন, "ওর সঙ্গে (ক্যাবরেরা) আগেও আমার একটা মিটিং হয়েছে। ওর ধারণা বা পরিকল্পনা শুনেছি। ও কী চায় সেটা বোঝার চেষ্টা করেছি। ওর লক্ষ্য কি এবং সামনে ও কিভাবে কাজ করবে সেসব নিয়েই মূলত কথা হয়েছে।" [caption id="attachment_63799" align="aligncenter" width="1072"] সাইফ স্পোর্টিং এর অনুশীলন দেখতে গিয়েছিলেন হ্যাভিয়ের ক্যাবরেরা।[/caption] শেষ তিন বছরে ব্রিটিশ কোচ জেমি ডে এবং সাফ চ্যাম্পিয়নশিপে স্প্যানিশ অস্কার ব্রুজন ও শ্রীলঙ্কা সফরে পর্তুগিজ কোচ মারিও লেমোসের অধীনে খেলেছে বাংলাদেশ। নতুন কোচ ক্যাবরেরার মধ্যে মূলত আলাদা কিছু খুঁজে পেয়েছে কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে জামাল বলেন, "ক্যাবরেরার সঙ্গে এখনো আমরা মাঠের অনুশীলন শুরু করিনি। ও তো (ক্যাবরেরা) স্প্যানিশ কোচ.... অন্য স্প্যানিশ কোচদের মতোই। যেমন অস্কার কিংবা লেমসের মতোই। ও নিজস্ব স্টাইল প্রতিস্থাপনের চেষ্টা করবে। আমরা ওর সঙ্গে কাজ করতে মুখিয়ে আছি।" এদিকে জামালকে নিয়ে প্রশংসা করলেন নতুন কোচ হ্যাভিয়ের ক্যাবরেরা। জাতীয় দলের পারফরমেন্স ভাল করতে জামালকে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখতে হবে বলে জানালেন এই স্প্যানিয়ার্ড। "সে (জামাল) খুব ভালো প্লেয়ার। সাইফ স্পোর্টিংয়ের প্রাণভোমরা। সামনে জাতীয় দলের পারফরম্যান্স উন্নত করতে তাকেও (জামাল) গুরুত্বপূর্ণ ভুমিকা রাখতে হবে।" দলের জন্য অধিনায়ক খুবই গুরুত্বপূর্ণ বলে মনে করেন ক্যাবরেরা। দলের টেকনিক্যাল স্টাফ এবং খেলোয়াড়দের মধ্যে সংযোগ সিঁড়ি হিসেবে কাজ করতে পারে এবং খেলোয়াড়দের মধ্যে উৎসাহ যোগানোর গুণাবলী রয়েছে এমন অধিনায়কই প্রত্যাশা করেন হ্যাভিয়ের ক্যাবরেরা। জানুয়ারির ফিফা উইন্ডোতে বাংলাদেশ কোনো ম্যাচ না খেলায় ক্যাবরেরার অধীনে ক্যাম্প করেনি জাতীয় দল। নতুন কোচের সঙ্গে কাজ করতে জামালদের অপেক্ষা করতে হচ্ছে মার্চ মাস পর্যন্ত। মার্চের ফিফা উইন্ডোতে ম্যাচ খেলতে আশাবাদী বাংলাদেশ।