ফুটবল > ক্লাব ফুটবল

রিয়ালের ‘অনুরোধ’ ফিরিয়ে দিল ব্রাজিল

নিউজ ডেস্ক

২৬ জানুয়ারী ২০২২, দুপুর ৪:৫৩ সময়

[ brazil-260122-02 ]
ছবিঃ ইন্টারনেট
আগামীকাল (বৃহস্পতিবার) রাতে বিশ্বকাপ বাছাইপর্বে ইকুয়েডরের বিপক্ষে মাঠে নামবে ব্রাজিল। কোভিড মহামারীর কারণে পূর্বে স্থগিত হয়ে যাওয়া ম্যাচে কাল খেলতে নামবে দুদল। আর ফিফা বিশ্বকাপ বাছাইপর্বে ম্যাচ হওয়ার কারণে ব্রাজিলে খেলোয়াড়দের ছাড়তে হয়েছে ইউরোপে ক্লাবগুলিকে। বাদ পড়েনি স্প্যানিশ জায়ান্ট ক্লাব রিয়াল মাদ্রিদও। জাতীয় দলের হয়ে বিশ্বকাপ বাছাইপর্ব খেলতে রিয়াল ব্রাজিলের ক্যাসিমেরো, এডার মিলিতাও, রদ্রিগো এবং ভিনিসিউস জুনিয়রে মতো দলের নিয়মিত একাদশের গুরুত্বপূর্ণ ফুটবলারদের ছাড়তে বাধ্য হয়েছে। অথচ, ব্রাজিলের ম্যাচ চলাকালীন সময়েই লস ব্ল্যাংকোসদের স্প্যানিশ কোপা দেল রে'র কোয়ার্টার ফাইনালের ম্যাচ খেলতে হবে। [caption id="attachment_63921" align="aligncenter" width="640"] ছবিঃ ইন্টারনেট[/caption] রিয়াল মাদ্রিদ আগামী ৩ ফেব্রুয়ারি কোপা দেল রে'র শেষ আটে অ্যাথলেটিক বিলবাওর বিপক্ষে মুখোমুখি হবে। ব্রাজিল আন্তর্জাতিক বিরতিতে নিজদের দ্বিতীয় ম্যাচে প্যারাগুয়ের বিপক্ষে খেলবে ঠিক ১ ফেব্রুয়ারী। ফিফার বাধ্যতামূলক বিশ্রামের নতুন নিয়ম অনুযায়ী, ২ ফেব্রুয়ারি ব্রাজিলের হয়ে যারা খেলবেন, তারা আর ৩ ফেব্রুয়ারি কোনো ম্যাচে নামতে পারবেন না। ইতোমধ্যে, বিশ্বকাপ বাছাইয়ে ১৩ ম্যাচে ১১ জয় ও দুই ড্রয়ে ৩৫ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে থাকা কাতার বিশ্বকাপের টিকিট নিশ্চিত করে ফেলেছে ব্রাজিল। তাই, সবকিছু বিবেচনা করে রিয়াল মাদ্রিদের তরফ থেকে সেলেসাও দের অনুরোধ করা হয়, ব্রাজিলের চার ফুটবলারকে ১ ডিসেম্বরের ম্যাচ না খেলিয়ে যাতে আগেভাগে ছেড়ে দেওয়া হয়। কিন্তু, রিয়াল মাদ্রিদের এ প্রস্তাবে রাজি হয়নি ব্রাজিল। বিশ্বকাপের সবচেয়ে সফলতম দলটি সাফ জানিয়ে দিয়েছে, নির্দিষ্ট সময়ের আগে কোন ফুটবলারকে ছাড়া হবে না। আজ (বুধবার) ব্রাজিল জাতীয় দলে সমন্বয়ক ও সাবেক ব্রাজিলিয়ান মিডফিল্ডার জুনিনহো পলিস্তা স্প্যানিশ সংবাদমাধ্যম কাদেনা সেরের অনুষ্ঠান ‘এল লারগেরো’তে এমন কথা জানান। “আমরা খেলোয়াড়দের ছাড়ছি না। ২ ফেব্রুয়ারি ফিফার (আন্তর্জাতিক বিরতির) মেয়াদ শেষ না হওয়া পর্যন্ত আমাদের সঙ্গে থাকতে হবে খেলোয়াড়দের। প্রথম ম্যাচে তাদের পারফরম্যান্সের ওপর নির্ভর করবে তারা দ্বিতীয় ম্যাচ খেলবে কিনা।” [caption id="attachment_63922" align="aligncenter" width="640"] ছবিঃ ইন্টারনেট[/caption] “তারা শেষ পর্যন্ত (২ ফেব্রুয়ারি) আমাদের সঙ্গে থাকবে। তাদের ছেড়ে দেওয়ার কোনো ইচ্ছে আমাদের নেই। আমরা এরকম কোনো নজির স্থাপন করতে পারি না। অন্যান্য ক্লাবের কাছ থেকেও আমাদের কাছে অনুরোধ ছিল।” চলতি বছরের নভেম্বরে কাতারে অনুষ্ঠিত হবে ফুটবল বিশ্বকাপ। বিশ্বকাপের বছর খেলোয়াড়দের স্বল্প সময়ে যথাযথ কাজে লাগাতে চায় ব্রাজিল। “খেলোয়াড়দের সঙ্গে কাজ করার জন্য আমরা অল্প কিছু দিনই পাই। এ বছরে বিশ্বকাপের প্রস্তুতির জন্য সেটির সুবিধা নিতেই হবে আমাদের।”