অন্যান্য > টেনিস

‘অনূভুতি প্রকাশের ভাষা জানা নেই নাদালের’

নিউজ ডেস্ক

৩১ জানুয়ারী ২০২২, সকাল ৬:৫৪ সময়

[ 20220131_124915 ]
ছবিঃ টুইটার
রোমাঞ্চকর, শ্বাসরুদ্ধকর ও অবিশ্বাস্য প্রত্যাবর্তনের গল্প লিখলেন রাফায়েল নাদাল। চোটের কারণে উইম্বলডন খেলতে পারেননি স্প্যানিশ কিংবদন্তি। মাত্র তিন মাস আগেও যার ক্যারিয়ারের এপিটাফ লিখে ফেলেছিল অনেকেই। সেখানে ইউএস ওপেন চ্যাম্পিয়ন, বিশ্বের শীর্ষ দুই নম্বর বাছাই এবং ফর্মের তুঙ্গে থাকা মেদভেদেচের বিপক্ষে প্রথম সেটে অসহায় আত্মসমর্পণ করার পরও ঘুরে দাড়িয়ে পরবর্তী তিন সেটে ম্যারাথন লড়াইয়ে ১৩ বছর পর অস্ট্রেলিয়ান ওপেনের শিরোপা জিতেছেন ৩৫ বছর বয়সী এই স্প্যানিয়ার্ড। [caption id="attachment_64414" align="aligncenter" width="2048"] ছবিঃ টুইটার[/caption] গতকাল (সোমবার) মেলবোর্নের রড লেভার অ্যারেনায় অস্ট্রেলিয়ান ওপেনে পুরুষ এককের ফাইনালে দানিল মেদভেদেভকে পাঁচ ঘণ্টা ২৪ মিনিট স্থায়ী মহাকাব্যিক লড়াইয়ে ২-৬, ৬-৭, ৬-৪, ৬-৪, ৭-৫ গেমে হারিয়ে নিজের ২১ তম গ্রান্ডস্ল্যাম ঘরে তুললেন রাফায়েল নাদাল। জীবন্ত অন্য দুই কিংবদন্তি রজার ফেদেরার ও নোভাক জোকোভিচকে ছাড়িয়ে টেনিসের উন্মুক্ত যুগে পুরুষ এককের সর্বকালের সর্বোচ্চ গ্রান্ডস্ল্যাম জয়ের মালিক এখন তিনিই। দারুণ এই জয়ে উচ্ছ্বসিত রাফায়েল নাদাল জয়ের প্রতিক্রিয়ায় প্রতিপক্ষের লড়াইকে প্রশংসায় ভাসিয়েছেন। স্প্যানিশ কিংবদন্তি আশাবাদী, তরুণ দানিল মেদভেদেভও অস্ট্রেলিয়ান ওপেনের শিরোপা কয়েকবার জিতবে। ম্যাচ শেষে নাদাল বলেন, “আমি জানি এটা কঠিন মুহূর্ত- দানিল তুমি অসাধারণ, তোমার মতো আমিও এই অবস্থানে ছিলাম। আমার কোনো সন্দেহ নেই এই ট্রফিটি ক্যারিয়ারে তুমি কয়েকবার পাবে, কারণ তুমি অসাধারণ।” তিন মাস আগেও অনেকে নাদালের ক্যারিয়ারের শেষ দেখে ফেলেছিল, এমন অবস্থায় ইতিহাস গড়ে ২১তম গ্রান্ডস্ল্যাম জিতেন ৩৫ বছর বয়সী এই স্প্যানিয়ার্ড। এই জন্য সমর্থক ও পরিবারের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান তিনি। “জানি না কী বলবো। এটা আমার জন্য অসাধারণ এক মুহূর্ত। সত্যি বলতে দেড় মাস আগেও আমি জানতাম না, আবার টেনিস খেলতে পারবো কি-না। আর আজ এই ট্রফি নিয়ে আপনাদের সামনে দাড়িয়ে আছি। আমার কাছে এখানে ফিরে আসার অর্থ কী, তা বোঝাতে পারবো না। আপনারা অসাধারণ, আপনাদের সকলের ভালোবাসা এবং সমর্থনের জন্য অনেক ধন্যবাদ।” “নিঃসন্দেহে এটা আমার ক্যারিয়ারের সবচেয়ে আবেগময় মুহূর্তগুলোর একটি। গত তিন সপ্তাহ আমি যে সমর্থন পেয়েছি, তা আমার হৃদয়ে থাকবে। অনেক, অনেক ধন্যবাদ।” [caption id="attachment_64415" align="alignnone" width="1065"] ছবিঃ টুইটার[/caption] চরম বাজে সময় কাটানোর পর এখন অস্ট্রেলিয়ান ওপেন জয়ে নিজের প্রাণশক্তি ফিরে পেয়েছেন নাদাল। যদিও মহাকাব্যিক এই জয়ের অনুভূতি প্রকাশের কোন ভাষা জানা নেই তাঁর। দেড় মাস আগে আমি ভেবেছিলাম, এটাই হয়তো আমার শেষ অস্ট্রেলিয়ান ওপেন। কিন্তু এই শিরোপা আমাকে সামনেও খেলা চালিয়ে যাওয়ার জন্য অনেক শক্তি দিয়েছে।” “এই মুহূর্তে সত্যিই আমার অনুভূতি ভাষায় প্রকাশ করতে পারবো না। আগামী বছর আবার এখানে আসার জন্য যথাসাধ্য চেষ্টা চালিয়ে যাবো। আপনাদের ধন্যবাদ এবং শিগগিরই দেখা হবে।”