ক্রিকেট > বাংলাদেশের ক্রিকেট

অস্বস্তিতে শুধু সাকিবই নন, তালিকায় তামিম - মুশফিকও

আর্ন্তজাতিক ক্রিকেটে বিগত কয়েক বছরে বাংলাদেশের সেরা পারফরম্যান্স যারা করেছেন তারা হঠাৎ নিজেদের ছায়া হওয়ার কারণটাই কি সাকিব বলে গেছেন!

নিউজ ডেস্ক

১৬ মার্চ ২০২২, দুপুর ১১:৪৬ সময়

[ images (50).jpeg ]
ইন্টারনেট

দক্ষিণ আফ্রিকা সফরটা বাংলাদেশের জন্য খুব সহজ কোন সফর না কখনই। যে সফরে বাংলাদেশের জয় পেতে হলে প্রয়োজন টিম ওয়ার্ক। এর আগে সিনিয়রদের উপরেই জাতীয় দলের ফলাফল নির্ভর করলেও সাম্প্রতিক সময়ে তরুণরা ভাল করে ম্যাচ জিতিয়েছেন। দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে প্রয়োজন সিনিয়র-জুনিয়রদের সমন্বয়। 

সফরে যাওয়ার আগে সাকিব বলেছিলেন তিনি মানসিকভাবে ফিট না, কথাটা স্পষ্ট সাকিবের পারফরম্যান্সেই। শুধুই সাকিব নন, সিনিয়রদের প্রায় সবাই ধুঁকছেন নিজেদের সেরাটা বের করে আনতে। 

সাকিবের শেষ দশ ওয়ানডেতে রান যথাক্রমে ৩০, ২০, ১০, ৩০, ৯৬*, ১৯, ৪, ০, ১৫, ৫১। ২০১৯ বিশ্বকাপে সাকিব যেমনটা করেছেন তার সঙ্গে এই পারফরম্যান্স বড্ড বেমানান। 

ওয়ানডে অধিনায়ক তামিম ইকবালও নিজের সেরা অবস্থানে নেই। একই ধরনের বলে আউট হয়েছেন তারা তিন বার। তামিমের শেষ দশ ওয়ানডেতে তামিম রান করেছেন যথাক্রমে ১১, ১২, ৮, ১১২, ২০ , ০, ১৭, ১৩, ৫২, ১। শেষ দশ ম্যাচে সাকিবের ফিফটি ২টি, তামিমের ১টি। সেঞ্চুরি পেয়েছেন একটি যেখানে প্রতিপক্ষ ছিল জিম্বাবুয়ে। 

আরেক টপ অর্ডার ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিমও ভালো করতে পারছেন না। মুশফিকের শেষ দশ ইনিংসে মুশফিক রান করেছেন যথাক্রমে ৫, ১২, ৪৮, ৫, ১৬, ৯১, ১১, ৪০, ৪০, ৬৮*। সাকিব-তামিমের তুলনায় মুশফিক ধারাবাহিক বেশি থাকলেও সেটি মুশফিকের সাথে বেমানান। 

আরেক সিনিয়র ক্রিকেটার মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ সে তুলনায় কিছুটা স্বস্তিতে আছেন। শেষ দশ ইনিংসে পঞ্চাশ পার করেছেন তিনবার, কাছাকাছি ছিলেন আরও কয়েকবার। শেষ দশ ইনিংসে রিয়াদ রান করেছেন ২৯*, ৬*, ৮, ০, ২৬, ৩৩, ৫৩, ৪১, ৫৪, ৭৬। 

সাকিব অনুধাবন করতে পেরেছেন তিনি আর ধকল নিতে পারছেন না। ক্লান্তি পেয়ে বসতেই পারে, কোভিডের কারণে অনেক নামী ক্রিকেটারেও এমন পরিস্থিতিতে পড়তে হয়েছে। তামিম, মুশফিকের বেলাতেও ব্যাপারটা তেমনটা হওয়ার সম্ভাবনাই বেশি। শুধু পার্থক্য এখানেই যে সাকিব বলতে পারলেন, বাকিরা পারেননি। যদিও তামিম বছর দুয়েকের মত টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে আর খেলছেন না।