ফুটবল > ক্লাব ফুটবল

আরেকটি হ্যাট্রিকের ‘মোনালিসা’ এঁকে রিয়ালকে সেমির পথে নিয়ে গেলেন বেনজেমা

করিম বেনজেমার হ্যাট্রিকে চেলসিকে উড়িয়ে দিল লস ব্ল্যাংকোসরা।

ডেস্ক রিপোর্ট

৭ এপ্রিল ২০২২, রাত ৩:২৪ সময়

[ 20220407_032355.jpg ]
টুইটার

উসাইন বোল্টের গতিতে ছুটে চলা ভিনিসিয়াসের এমন ক্রস আশা করেননি করিম বেনজেমাও। গেল ম্যাচেই মেসি-নেইমার-এমবাপ্পেদের তারকাঠাসা দলের বিপক্ষে অবিশ্বাস্য এক হ্যাট্রিক করে রিয়ালের স্বপ্ন যাত্রা বড় করেছিলেন। হয়তো সেই জন্যেই এমন আত্মবিশ্বাসে টুইটম্বুর ছিলেন। নাহয় এমন জায়গায় হুট করেই এভাবে কেউ প্রতিপক্ষের দুজনের মাঝখানে হেড করে? 

এদুয়া মেন্ডি চেষ্ট করেছিলেন বটে। কিন্তু, দুর্দান্ত ফর্মে থাকা সেনেগালের গোলরক্ষকও তা পেলেন না নাগাল। স্ট্যামফোর্ড ব্রীজের হাজার পঞ্চাশেক দর্শককে স্তব্ধ করে দিয়ে লিওনার্দো দ্য ভিঞ্চির ‘মোনালিসা’ একেঁই ফরাসি তারকার মাথা ছোঁয়া বলটি চলে যায় জালের ঠিকানায়। দুর্ভেদ্য করিম বেনজেমার ফের অপ্রতিরোধ্য যাত্রা শুরু হয় তখন থেকেই। 

তারপর আরও একবার প্রথম গোলের পুনরাবৃত্তি ঘটিয়ে, একবার প্রতিপক্ষের গোলরক্ষকের ব্যর্থতায় দুবার বল জালে পাঠিয়ে আসরে টানা দ্বিতীয় হ্যাট্রিক পূর্ণ করেন। ফরাসি তারকার অবিশ্বাস্য হ্যাট্রিকে লস ব্ল্যাংকোসরাও আসরে সেমিফাইনালের পথে এক আগ বাড়িয়ে রাখলো। 

আজ (বুধবার) উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লিগের শেষ আটের প্রথম লেগে চেলসিকে ৩-১ গোলে হারিয়েছে রিয়াল মাদ্রিদ। কার্লো আনচেলত্তির দলের হয়ে তিনটি গোলই করেছেন করিম বেনজেমা। ব্লুজদের হয়ে একমাত্র গোলটি করেছেন কাই হ্যাভার্টজ। ছয়বারের সাক্ষাতে এবারই প্রথম লন্ডনের ক্লাবটির বিপক্ষে জয় পেল ইউরোপের সফলতম দলটি। 

ঘরের মাঠে বল দখলের লড়াইয়ে এগিয়ে ছিল চেলসি। গোটা ম্যাচে ৫৮ শতাংশ বল নিজেদের পায়ে রাখে দলটি। গোলমুখে শট নেওয়ার ক্ষেত্রেও দাপট ছিল ব্লুজদের। পুরো ম্যাচে ২০টি শট নিয়ে ৫টি লক্ষ্যে রাখে টমাস টুখেলের দল; বিপরীতে রিয়াল মাদ্রিদ ৮ শটের ৫টিই লক্ষ্যে রাখতে পারে। 

সটামফোর্ড ব্রীজে আক্রমণ প্রতি আক্রমণের জমে উঠে খেলা। ম্যাচের প্রথম থেকে দুদলই আক্রমণ চালায়। কিন্তু, ৩ মিনিটের ঝলকে ম্যাচ রিয়ালের নিয়ন্ত্রণে এনে দেন করিম বেনজেমা। ম্যাচের ২১ তম মিনিটে ভিনিসিয়াসের পাস থেকে গোল করে লস ব্ল্যাংকোসদের এগিয়ে দেওয়ার তিন মিনিট পরই লুকা মদ্রিচের ক্রসে ফের হেডে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন ৩৪ বছর বয়সী এই ফরোয়ার্ড। 

ম্যাচের ফিরতে মরিয়া চেলসি একের পর এক আক্রমণ শানিয়েও কাজের কাজ করতে পারছিলো না। অবশেষে বিরতির আগে ব্যবধান কমায় ব্লুজরা। 

করিম বেনজেমার জোড়া হেড গোলের জবাব দেন কাই হ্যাভার্টজ। ৪০তম মিনিটে জর্জিনিয়োর পাস থেকে গোলটি করেন জার্মান মিডফিল্ডার। প্রথমার্ধের খেলা ১-০ গোলে শেষ হয়। 

বিরতির পর মাঠে নেমে রক্ষণের ভুলে কিছু বুঝে উঠার আগেই ম্যাচ থেকে অনেকটাই ছিটকে পড়ে চেলসি। ৪৬তম মিনিটে ক্যাসিমেরোর লম্বা পাসে বল পায় চেলসির গোলরক্ষক এডুয়া মেন্ডি। সেনেগালিজ তারকা বল দিতে গিয়েছিলেন সতীর্থ অ্যান্টানিও রুডিগারকে। 

কিন্তু, তার আগেই করিম বেনজেমা বল পেয়ে ডি-বক্সের বাহির থেকেই লক্ষ্যভেদ করেন। টানা দ্বিতীয় হ্যাট্রিক পূর্ব হয়ে যায় ফরাসি তারকার। 

ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোর পর মাত্র দ্বিতীয় ফুটবলার হিসেবে চ্যাম্পিয়নস লিগের নক আউট পর্বে টানা দুই হ্যাট্রিক করলেন বেনজেমা। চেলসির বিপক্ষে ইউরোপ সেরার আসরে প্রথম হ্যাট্রিক করা খেলোয়াড়ও তিনি। সবমিলিয়ে ইতিহাসের মাত্র চতুর্থ ফুটবলার হিসেবে মহাদেশীয় সেরা হওয়ার লড়াইয়ে ৮০তম গোলের মাইলফলক স্পর্শ করলেন ৩৪ বছর বয়সী এই তারকা। 

বাকি সময়টুকু ম্যাচে ফিরতে মরিয়া চেলসি দুর্দান্ত কিছু সুযোগ পেয়েছিল। কিন্তু, কখনও রিয়াল গোলরক্ষক থিবো কর্তোয়ার নৈপুণ্যে কিংবা কখনও আক্রমণভাগে ফুটবলারদের ব্যর্থতায় তা কাজে লাগাতে পারেনি। ফলে ঘরের মাঠে হার নিয়েই মাঠ ছাড়তে হয় ব্লুজদের। ইতিহাসে এবারই প্রথম রিয়ালের বিপক্ষে হারের মুখ দেখলেন চেলসি কোচ টমাস টুখেল। 

আগামী বুধবার রিয়ালের ঘরের মাঠে দুদলের দ্বিতীয় লেগ অনুষ্ঠিত হবে।