ক্রিকেট > ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেট

পাকিস্তান জুনিয়র লিগের মেন্টর হিসেবে ১ কোটি রুপি করে পাবেন আফ্রিদি-মালিক-সামিরা

চলতি বছর ১ অক্টোবর থেকে রমিজ রাজার মাস্টারপ্ল্যান পিজিএল শুরু হওয়ার কথা রয়েছে।

ডেস্ক রিপোর্ট

৩ জুলাই ২০২২, সকাল ৭:৩৪ সময়

[ 20220703_072659.jpg ]
সংগৃহীত

পাকিস্তান ক্রিকেটের চেহারা বদলে দিতে একের পর এক পরিকল্পনা সাজাচ্ছেন পিসিবি সভাপতি রমিজ রাজা। চলতি বছরের ফেব্রুয়ারিতে ঘরের মাঠে বেশ জাঁকজমকপূর্ণভাবে পাকিস্তান সুপার লিগে আয়োজন করেছে পিসিবি। 

এবার পিসিবি সভাপতির ব্রেইনচাইল্ড থেকে এসেছে নতুন ধারণা। পাকিস্তানের প্রত্যন্ত অঞ্চল থেকে তরুণ প্রতিভাবান ক্রিকেটারদের তুলে আনতে ও ক্রিকেট বাণিজ্যে আরও বাড়িয়ে তুলতে ‘পাকিস্তান জুনিয়র লিগ’ আয়োজন করতে যাচ্ছেন তিনি। রমিজ রাজার স্বপ্নের পিজেএল শুরু হতে পারে ১ অক্টোবর থেকে। 

পাকিস্তান জুনিয়র লিগে ১৫ থেকে ১৯ বছর বয়সী ক্রিকেটারদের নিয়ে নিলাম অনুষ্ঠিত হবে। নিলামে দেশি ক্রিকেটারদের পাশাপাশি বিদেশিরাও অংশ নিতে পারবেন। মোট ছয়টি ফ্র্যাঞ্চাইজি নিয়ে পাকিস্তানের ছয়টি শহরের নামে দল গঠন করা হবে। 

জুনিয়র ক্রিকেটারদের ফ্র্যাঞ্চাইজিভিত্তিক এ লিগ হবে দুই সপ্তাহব্যাপী। এ লিগে সঙ্গে যুক্ত থাকতে ইতোমধ্যে ২৪টি করপোরেট প্রতিষ্ঠান আগ্রহ দেখিয়েছে। তাদের মধ্যে কেউ কেউ দল কিনতে চাইলেও অন্যরা ভিন্নভাবে যুক্ত থাকতে চায়। 

পিসিবি আগেই জানিয়েছিলো, তরুণদের এই লিগে মেন্টর হিসেবে থাকবেন দেশি-বিদেশি কিংবদন্তিরা। ইতোমধ্যে, তাদের মধ্যে চারজনের নামও ঘোষণা করে ফেলেছে সংস্থাটি। তালিকায় জাভেদ মিয়াদাদের সঙ্গে আছেন শহীদ আফ্রিদি ও শোয়েব মালিক। বিদেশিদের মধ্যে চূড়ান্ত হয়েছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ কিংবদন্তি ড্যারেন সামির নাম। 

জানা গেছে, এই চারজন মেন্টরের প্রত্যেকে পিসিবির কাছ থেকে ৫০ হাজার ডলার তথা ১ কোটি রুপি করে সম্মানি পাবেন। এছাড়াও প্রত্যেকটা দল থেকেও তারা প্রায় সমপরিমাণ অর্থ পাবেন। সব মিলিয়ে চারজন মেন্টর মোট ৭ কোটি রুপি পাবেন মাত্র দুই সপ্তাহের এই ইভেন্ট থেকে।

মেন্টর ছাড়াও টুর্নামেন্টের শুভেচ্ছাদূত হিসেবেও কাজ করবেন আফ্রিদি-মালিক-সামিরা। পাশাপাশি টুর্নামেন্টজুড়ে তারা তরুণ ক্রিকেটারদের নানাভাবে সাহায্যেও করবেন।