ক্রিকেট > আন্তর্জাতিক ক্রিকেট

গলে ইতিহাস গড়তে পারবে পাকিস্তান?

ইতিহাস হাতছানি দিচ্ছে বাবর আজমদের।

ডেস্ক রিপোর্ট

২০ জুলাই ২০২২, রাত ১২:৩০ সময়

[ 20220720_002558.jpg ]

ইতিহাস হাতছানি দিচ্ছে পাকিস্তানকে। গলে টেস্টে শেষদিন নিজেদের কাজটুকু ঠিকঠাক করতে পারলেই দুটো রেকর্ড গড়তে পারবে বাবর আজমের দল। 

একটি হচ্ছে, শ্রীলঙ্কার গল ইন্টারন্যাশনাল স্টেডিয়ামে চতুর্থ ইনিংসে সবচেয়ে বেশি রান করা; অপরটি সবচেয়ে বেশি রান তাড়া করে জয়ের রেকর্ড। দুটো রেকর্ড গড়তেই পাক ব্যাটারদের শেষদিন করতে হবে ৭ উইকেটে ১২০ রান।

আজ (মঙ্গলবার) ঘরের মাঠে শ্রীলঙ্কার দ্বিতীয় ইনিংস শেষ হয় ৩৩৭ রানে। আগের দিনের অপরাজিত ব্যাটার প্রভাথ জয়সুরিয়া মাত্র ৪ রান করে আউট হয়ে যাওয়ায় শতরান অধরাই থাকে দীনেশ চান্ডিমলের।

শেষ পর্যন্ত ৯৪ রানে অপরাজিত থাকেন তিনি। জয়সুরিয়াকে আউট করেন নাসিম শাহ। দিমুথ করুণারত্নেদের দ্বিতীয় ইনিংস শেষ হয় ৩৩৭ রানে।

জয়ের জন্য ৩৪২ রানের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে চতুর্থ দিনের শেষে পাকিস্তানের রান ৩ উইকেটে ২২২। 

সফরকারীদের উড়ন্ত সূচনা এনে দেন ইমাম-শফিক উদ্বোধনী জুটি। দুজনের জুটিতে রান আসে ৮৭। 

রমেশ মেন্ডিসের বলে নিরোশান ডিকভেলাকে ক্যাচ দেওয়ার আগে ফেরার আগে ৭৩ বলে ৩৫ রান করেছেন ইমাম।

আজহার আলী বেশিক্ষণ থাকতে পারেননি। তিনে নেমে আউট হন ৩২ বলে ৬ রান করে। বাঁহাতি স্পিনার প্রবাথ জয়াসুরিয়ার অফ স্টাম্পের বাইরের বল ড্রাইভ করে স্লিপে ধরা পড়ে পাকিস্তানের সাবেক অধিনায়ক।

এরপর প্রতিরোধ গড়ে তুলেন বাবর-শফিক। আব্দুল্লাহ শফিক ৯৪ বলেই অর্ধশতক পূরণ করেন। গলে প্রথম ইনিংসের বাবর পঞ্চাশ করেন ৮৯ বলে। এদিন তিনি স্পর্শ করেন ৩ হাজার টেস্ট রানের মাইলফলকও।

বাবরকে নিয়ে শত রানের জুটি গড়েন শফিক। ২৩৮ বলে ক্যারিয়ারের দ্বিতীয় শতকও হাঁকিয়ে ফেলেন শ ফিক। খানিক পরই বড় ধাক্কাটা খায় পাকিস্তান। প্রভাত জয়সুরিয়ার এক দুর্দান্ত ডেলিভারিতে আউট হয়ে মাঠ ছাড়েন পাক অধিনায়ক বাবর আজম। ভেঙে যায় দু জনের ২৩৮ বলে ১০১ রানের জুটি। 

দিনের আর বাকি সময় মোহাম্মদ রিজওয়ানকে নিয়ে কাটিয়ে দেন শফিক। মোহাম্মদ রিজওয়ান ৭ রান করে  অপরাজিত আছেন। আব্দুল্লাহ শফিক অপরাজিত আছেন ১১২ রানে।