ফিফা ফুটবল বিশ্বকাপ

ব্রাজিলই খেলবে বিশ্বকাপের ‘মৃত্যুকূপ’ গ্রুপে

বিশ্বকাপের গ্রুপপর্বেই কঠিন পরীক্ষা দিতে হবে নেইমারদের।

ডেস্ক রিপোর্ট

১৬ নভেম্বর ২০২২, রাত ১২:২০ সময়

[ Screenshot_20221116-001641_Gallery.jpg ]

কাতার বিশ্বকাপের ড্র অনুষ্ঠিত হওয়ার পর থেকেই শুরু হয় চুলচেরা বিশ্লেষণ, কোন গ্রুপ সবচেয়ে শক্তিশালী, কোনটাকে বলা হচ্ছে ‘ডেথ গ্রুপ’ বা মৃত্যুকূপ। ড্র’য়ের পর বিশ্বকাপের ফেবারিট দলগুলোর সমর্থকদের কেউ কেউ খুশি, আবার কারো কারো মনে শঙ্কা, তাদের প্রিয় দল গ্রুপ পর্ব পার হতে পারবে তো!

মূলত, খালি-চোখে অনেকেই এবার গ্রুপ ‘ই’কে মৃত্যুকূপ গ্রুপ বলেছে। এই গ্রুপে সাবেক দুই বিশ্বচ্যাম্পিয়ন দলের সঙ্গে আছে এশিয়ার অন্যতন সেরা দল জাপান; আর অন্যটি অঘটন ঘটাতে পটু দল কোস্টা রিকা। গ্রুপে জার্মানি ও স্পেন নিশ্চিত ফেভারিট থাকলেও নিশ্চিত জাপান ও কোস্টা রিকার কঠিন পরীক্ষা নিতে হবে।  

সাবেক দুই বিশ্বচ্যাম্পিয়ন দল একই গ্রুপে থাকায় স্বভাবতই অনেকের কাছে ‘ই‘ গ্রুপ  কঠিন গ্রুপ মনে হলেও পরিসংখ্যান বলছে ভিন্ন কথা। বিশ্ব ফুটবলের জাতীয় দলের র‍্যাংকিং পদ্ধতি নিয়ে কাজ করা ইলো রেটিংয়ের মতে, কাতার বিশ্বকাপের সবচেয়ে কঠিন গ্রুপ ধরা হচ্ছে ব্রাজিলের গ্রুপকেই। 

২০১৮ সালে রাশিয়া বিশ্বকাপের পর দলগুলির ধারাবাহিক পারফরম্যানন্সের উপর ভিত্তি করে গ্রুপ ‘জি’ কে ‘গ্রুপ অব ডেথ' বলছে সংস্থাটি। ইলো রেটিংয়ের মতে, এবার বিশ্বকাপের সবচেয়ে কঠিন গ্রুপে খেলবএ ব্রাজিল। 

যেখানে নেইমারদের অন্য তিন প্রতিপক্ষ হচ্ছে সার্বিয়া, সুইজারল্যান্ড, ও ক্যামেরুন। শুধু ২০২২ বিশ্বকাপ না; প্রতিষ্ঠানটির হিসেবে গত ৫২ বছরে কঠিন গ্রুপের মধ্যে ব্রাজিলের ’জি’ গ্রুপটির অবস্থান ষষ্ট।

তাদের হিসাবে ১৯৭০ সালে বিশ্বকাপে ব্রাজিলের খেলা ‘গ্রুপ-৩’ কে গত ৫২ বছরের বিশ্বকাপের ইতিহাসের সবচেয়ে কঠিন গ্রুপ বলে ধরা হয়েছে। যেখানে পেলেদের প্রতিপক্ষ ছিলো ইংল্যান্ড, যুগোস্লাভিয়া ও রোমানিয়া।

ইলোর হিসাবে, এবার বিশ্বকাপে ‘গ্রুপ অব ডেথ’ তালিকায় গড়ে ১৯০১ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে আছে ব্রাজিলের ‘জি' গ্রুপ। দুইয়ে থাকা স্পেন ও জার্মানির ‘ই’ গ্রুপটির ইলো রেটিং হচ্ছে গড়ে ১৮৮৫। 

তিনে থাকা বেলজিয়াম ও ক্রোশিয়ার ‘এফ’ গ্রুপের গড় পয়েন্ট ১৮৬৮।আর চারে থাকা মেসির আর্জেন্টিনা ‘সি’ গ্রুপের গড় পয়েন্ট ১৮৪৯। শিরোপাধারী ফ্রান্সের ‘ডি' গ্রুপ ১৮৪৬ পয়েন্ট নিয়ে আছে পাঁচে। 

ইতিমধ্যেঅ, ব্রাজিলের বিশ্বকাপ ক্যাম্প শুরু হয়ে গেছে। ইতালির তুরিনে জুভেন্টাস ট্রেনিং কমপ্লেক্সে ক্যাম্পে ৫ দিনের অনুশীলন শেষে ১৯ নভেম্বর দোহায় যাবে নেইমাররা। আগামী ২৪ নভেম্বর সার্বিয়ার বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে বিশ্বকাপ যাত্রা শুরু হবে সেলেসাওদের।